আসক্তি বনাম আসত্তি, অ-সঙ্গ বনাম অসঙ্গ; ‍ধূসর বানানে ষ নয় কেন

ড. মোহাম্মদ আমীন

আসক্তি বনাম আসত্তি, অ-সঙ্গ বনাম অসঙ্গ; ‍ধূসর বানানে ষ নয় কেন

আসক্তি বনাম আসত্তি

আসক্ত থেকে আসক্তি। সংস্কৃত আসক্তি (আ+√ সন্‌জ্‌+তি) অর্থ— (বিশেষ্যে) গভীর অনুরাগ ( আসত্তি ভালোবাসার হার্দিক উপাদান);  লিপ্সা, ভোগবিলাস (সম্পদের প্রতি অতিরিক্ত আসত্তি ঠিক নয়)। সংসক্তি, অভিনিবেশ। আসত্তি (আ+√ সদ্+তি) অর্থ— (বিশেষ্যে) নৈকট্য, সন্নিধি; মিলন। ব্যাকরণে শব্দটির অর্থ— বাক্যে পরস্পর অন্বিত পদসমূহের সন্নিহিত অবস্থান, বাক্যের পদসমূহের সর্বাধিক সুশোভন এবং অর্থবহ অবস্থান, যে অবস্থানের পরিবর্তন বাক্যের আদর্শ মান ও উদ্দেশ্যকে ব্যাহত করে।

অ-সঙ্গ ও অসঙ্গ
‘অ-সঙ্গ’ শব্দের অর্থ— খারাপ সঙ্গ, অযোগ্য সঙ্গ, অবাঞ্চিত সঙ্গ। অ-সঙ্গ থেকে অসঙ্গলিপ্সা। একই অভিধানমতে, ‘অসঙ্গ’ শব্দের অর্থ— সঙ্গহীন, একা, অসংলগ্ন, বৈরাগ্য, অনাসক্তি। 
 
ধূসর: ধূসর বানানে ষ কেন
 ষ-ত্ব বিধানে বলা আছে, ই/উ-কারান্তের পরে ‘ষ’ হয়। যেমন: দুষ্কর/পুষ্প/ কিষাণ। ধূসর= ধূ+সর। এটি যূথবদ্ধ। সর একটি পৃথক শব্দ। তাই সর বানানের স পরিবর্তন হওয়ার কোনো সুযোগ নেই। অ আ ভিন্ন স্বর, ক্ এবং র্ -এর পরবর্তী বিভক্তি বা প্রত্যয়ের স, মূর্ধন্য-ষ হয়। শব্দের স সাধারণ ষত্বে পরিবর্তন হয় না।
 
 

 

error: Content is protected !!