গোবিন্দ হালদার দেশের গান: স্বাধীন বাংলা বেতার, সুচিত্রা সেন ও অ্যান্তন চেখভ

ড. মোহাম্মদ আমীন

গোবিন্দ হালদার দেশের গান: স্বাধীন বাংলা বেতার, সুচিত্রা সেন ও অ্যান্তন চেখভ

গোবিন্দ হালদার
খ্যাতিমান গীতিকার ও কবি গোবিন্দ হালদার ১৯৩০ খ্রিষ্টাব্দের ২১শে ফেব্রুয়ারি কলকাতার পশ্চিমবঙ্গের বনগাঁয়ে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর রচিত প্রথম কবিতা ‘আর কতদিন’। এ পর্যন্ত পাওয়া তাঁর লেখা গান ও কবিতার সংখ্যা  ৩৫২২। তাঁর প্রকাশিত প্রথম কাব্য ‘দূরদিগন্ত’।
 
মুক্তিযুদ্ধের সময় স্বাধীন বাংলা বেতারে সম্প্রচারিত তাঁর লেখা গানসমূহের মধ্যে ‘মোরা একটি ফুলকে বাঁচাবো বলে যুদ্ধ করি’, ‘এক সাগর রক্তের বিনিময়ে’, ‘পূর্ব দিগন্তে সূর্য উঠেছে’, ‘লেফট রাইট লেফট রাইট’, ‘হুঁশিয়ার হুঁশিয়ার’, ‘পদ্মা মেঘনা যমুনা’, ‘চলো বীর সৈনিক’, ‘হুঁশিয়ার, হুঁশিয়ার বাংলার মাটি’ প্রভৃতি অন্যতম। এ গানগুলো  এখনো কোটি কোটি বাঙালিকে দেশপ্রেমের শিহরনে আলোড়িত করে যাচ্ছে। উদ্বুদ্ধ করে যাচ্ছে  অনাবিল বীরত্বের মাটিময় মুগ্ধতায়।
গোবিন্দ হালদারের গানসমূহের মধ্যে স্বাধীন বেতারে প্রথম প্রচারিত গান:  সমর দাসের সুরারোপিত ‘পূর্ব দিগন্তে সূর্য উঠেছে রক্ত লাল রক্ত লাল রক্ত লাল’ গানটি। পাক বাহিনীর আত্মসমর্থনের খবর পাওয়ার  পর ১৬ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় প্রচারিত হয় ‘এক সাগর রক্তের বিনিময়ে’ গানটি। এ গানটিতে সুর দিয়েছিলেন আপেল মাহমুদ।  মূল কণ্ঠ দিয়েছিলেন স্বপ্না রায়। তৎসঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছিলেন আপেল মাহমুদ ও সহশিল্পীবৃন্দ।
 
বাংলা গানের এ চিরন্তন শিল্পীর চিরন্তন গানগুলো লাখ লাখ বার গাওয়া হয়েছে, হচ্ছে ও হবে কিন্তু গীতিকারের খবর কেউ রাখেনি। দেশ স্বাধীন হওয়ার পর তিনি আস্তে আস্তে স্মৃতির অতলে হারিয়ে যেতে থাকেন। তাঁর অবদান ভুলে যেতে থাকে সবাই। ২০১৩ খ্রিষ্টাব্দ থেকে তিনি অসুস্থ বোধ করতে থাকেন।  ২০১৪ খ্রিষ্টাব্দের শেষের দিকে অসুস্থতা গুরুতর আকার ধারণ করে। চিকিৎসার জন্য  কলকাতার মানিকতলায় অবস্থিত জেএন রায় সেবা ভবন হাসপাতালে ভর্তি হন। দুই মাস কলকাতার মানিকতলায় জেএন রায় সেবা ভবন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গোবিন্দ হালদার ২০১৫ খ্রিস্টাব্দের ১৭ই জানুয়ারি সকাল ১০টা ২০ মিনিটে মারা যান।
 
অ্যান্ত  চেখভ

অ্যান্ত পাভলোভিচ চেখভAnton Chekhov, ২৯ জানুয়ারি ১৮৬০ – ১৫ জুলাই ১৯০৪);  রুশ চিকিৎসক, নাট্যকার ও ছোটগল্পকার। তাঁকে  বিশ্বসাহিত্যের অন্যতম সেরা ছোটগল্পকার বলা হয়।  নাট্যকার হিসেবে পেশাজীবনে চেখভ চারটি ক্ল্যাসিক রচনা করেছেন। সবচেয়ে বেশি সংখ্যক নাটক মঞ্চস্থ হয়েছে এমন নাট্যকারদের মধ্যে শেকসপিয়ার ও ইবসেনের পাশাপাশি চেখভের নামও উল্লেখ করা হয়। এছাড়া মঞ্চনাটকে প্রাক-আধুনিকতার উদ্ভবে  ইবসেন ও অগুস্ত স্ত্রিন্দবারির পাশাপাশি চেখভের নামও উল্লেখ করা হয়। ১৮৮০ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৯০৩ খ্রিষ্টাব্দের মধ্যে তিনি সর্বমোট ৬০০টি সাহিত্যকর্ম রচনা ও প্রকাশ করেন।  থ্রি সিস্টার্সদ্য সিগাল এবং দ্য চেরি অরচার্ড এই তিনটি নাটকের মাধ্যমে তিনি নাট্যকার হিসেবে আন্তর্জাতিকভাবে পরিচিতি  ও বিশ্বখ্যাতি লাভ করেন।

সুচিত্রা সেন

সুচিত্রা সেন (৬ই এপ্রিল, ১৯৩১ – ১৭ই জানুয়ারি, ২০১৪) বাংলা ও হিন্দি চলচ্চিত্র অভিনেত্রী। জন্মনাম রমা দাশগুপ্ত। বাংলা চলচ্চিত্রে উত্তম কুমারের সঙ্গে  নায়িকার ভূমিকায় অভিনয় করে অপ্রতিরোধ্য জনপ্রিয়তা ও খ্যাতি অর্জন করেন। ১৯৬৩ খ্রিষ্টাব্দে সাত পাকে বাঁধা চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য মস্কো চলচ্চিত্র উৎসবে সুচিত্রা সেন “সিলভার প্রাইজ ফর বেস্ট অ্যাকট্রেস” জয় করেন। তিনিই প্রথম ভারতীয় অভিনেত্রী যিনি কোনো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে পুরস্কৃত হয়েছিলেন। ১৯৭২ খ্রিষ্টাব্দে ভারত সরকার তাকে পদ্মশ্রী সম্মান প্রদান করে।২০১২ খ্রিষ্টাব্দে তাকে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের সর্বোচ্চ সম্মাননা বঙ্গবিভূষণ প্রদান করে।

শুবাচ গ্রুপের লিংক: www.draminbd.com
 
error: Content is protected !!