জিলা জেলা রসাতল পরশু পরশুরাম তাই এবং তা-ই

ড. মোহাম্মদ আমীন

জিলা জেলা রসাতল পরশু পরশুরাম তাই এবং তা-ই

সংযোগ: https://draminbd.com/জিলা-জেলা-রসাতল-পরশু-পরশু/

জেলা জিলা: জেলা ও জিলা দুটোই শুদ্ধ।জিলা সাধু রূপ এবং জেলা চলিত রূপ। এর অর্থ— (বিশেষ্যে) বিভাগের অন্তর্গত প্রশাসনিক অঞ্চল, কয়েকটি উপজেলার সমষ্টি।

পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স লি.

বাংলা একাডেমি আধুনিক বাংলা অভিধানের ৫২৮ পৃষ্ঠায় বর্ণিত জেলা ভুক্তি অনুযায়ী— বাক্যে (বিশেষ্য) হিসেবে ব্যবহৃত জেলা আরবি শব্দ। কিন্তু একই অভিধানের ৫২২ পৃষ্ঠায় জিলা ভুক্তিতে লেখা হয়েছে— ‘জিলা’ হলো জেলা শব্দের শব্দের সাধু রূপ এবং এটি ফারসি শব্দ। এ অবস্থায় জেলা/জিলা আরবি না কি ফারসি? এটা কি টেপাভুল?

রসাতল: রসাতল শব্দের অর্থ ধ্বংস, বিনাশ, অধোগতি। ভারতীয় পুরাণে বর্ণিত পাতালসমূহের মধ্যে ষষ্ঠ নিম্নস্তরের পাতালের নাম রসাতল। এই রসাতল হতে শব্দটির উৎপত্তি ও বিকাশ। স্বর্গ, মর্ত্য ও পাতাল নিয়ে ভারতীয় পুরাণের ত্রিভুবন গঠিত। পাতাল সাতটি স্তরে বিভক্ত। উপর থেকে নিচে স্তরগুলোর নাম য়থাক্রমে (১) অতল, (২) বিতল, (৩) সুতল, (৪) তলাতল, (৫) মহাতল, (৬) রসাতল ও (৭) পাতাল। রসাতলের মতো ষষ্ঠ গভীর পাতালে যে নিপতিত হয় তার উদ্ধারের সম্ভাবনা ক্ষীণ হয়ে যায়। তাই বাঙালিরা ধ্বংস বা বিনাশ কিংবা গোল্লায় যাওয়া প্রকাশে শব্দটি ব্যবহার করে।
পরশু ও পরশুরাম:পরশু অর্থ- প্রাচীন যুদ্ধাস্ত্রবিশেষ/কুঠার, আগামীকালের পরবর্তী দিন, গতকালের পূর্ববর্তী দিন। ঋষি পরশুরামের মূলনাম রাম। তিনি ভগবান শিবের একনিষ্ঠ ভক্ত ছিলেন। কঠোর তাপস্য ও সাধনার পুরস্কার হিসেবে ভগবান শিব তাঁকে একটি পরশু উপহার দেন, যা দিয়ে তিনি পরবর্তীতে ক্ষত্রিয়দের পরাজিত করে পৃথিবী জয় করেন। তাই তাঁর নাম হয়ে যায় পরশুরাম। এখানে, পরশু মানে কুঠার।
তাই/ তা-ই: তাই’‘তা-ই’ অভিন্ন অর্থবাচক শব্দ মনে হলেও শব্দদ্বয়ের অর্থ ও ব্যবহারে পার্থক্য রয়েছে। ‘তাই’ শব্দের সমার্থক শব্দ ‘সুতরাং, অতএব, সেজন্য, সেহেতু, সেকারণে’ প্রভৃতি। যেমন: লেখাপড়া করোনি, তাই ফেল মেরেছ। অন্যদিকে ‘তা-ই’ শব্দের সমার্থক শব্দ হচ্ছে তাহাই। সাধু ভাষার তাহাই চলিত ভাষার তা-ই। আবশ্যকতা কিংবা বাধ্যবাধকতা প্রকাশে ‘তা-ই’ ব্যবহার করা হয়। উদহারণ: যা চাইছি তা-ই দিতে হবে। আমার তা-ই প্রয়োজন।
error: Content is protected !!