পাঞ্জাব নয়, পঞ্জাব; কিন্তু পাঞ্জাবি

ড. মোহাম্মদ আমীন
পাঞ্জাব নয়, পঞ্জাব; কিন্তু পাঞ্জাবি
পাঞ্জাব নয়, পঞ্জাব। এটি ফারসি শব্দ। পাঞ্জাব ভুল শব্দ।এটি  একটি স্থান নাম। বাংলা একাডেমি আধুনিক বাংলা অভিধানে আপনি পাঞ্জাব শব্দটি পাবেন না। অবশ্য পঞ্জাব শব্দটিও নেই। ফারসিতে পাওয়া যায় পঞ্জাব। পঞ্জ ও আব শব্দের মিলেন পঞ্জাব (পঞ্জ+আব) গঠিত। পাঞ্জাবি শব্দটিও ফারসি; অর্থ জামাবিশেষ।
পঞ্জাব, ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে বিভাজিত প্রদেশ। ১৯৪৭ খ্রিষ্টাব্দে ভারত বিভাজনের পর ব্রিটিশ ভারতের পঞ্জাব প্রদেশ ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে বিভক্ত করা হয়। ১৯৬৬ খ্রিষ্টাব্দে নতুন রাষ্ট্র গঠনের সময় ভারতীয় পঞ্জাব বর্তমান পঞ্জাব রাজ্য, পাশাপাশি দুটি নতুন রাজ্য হরিয়ানা ও হিমাচল প্রদেশে বিভক্ত করা হয়। পঞ্জাব রাজ্যের  উত্তরে জম্মু ও কাশ্মীর, পূর্বে হিমাচল প্রদেশ, দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্বে হরিয়ানা, দক্ষিণ-পশ্চিমেে রাজস্থান এবং পশ্চিমে পাকিস্তানের পঞ্জাব ভারতের পঞ্জাবের সীমা নির্ধারণ করেছে। এর রাজধানী চণ্ডীগড়।  এটি একটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল এবং হরিয়ানা রাজ্যেরও রাজধানী।

আর একটি ভুল শব্দ মারাঠা। আসলে শব্দটি হবে মারাঠি। কাশ্মীর বানানে ঈ-কার হবে। ই-কার নয়।সংস্কৃত  কাশ্মীর (কাশ্মীর+অ) বিশেষ্যে জাফরান, কুমকুম, পদ্মের মূল, ৪ টঙ্ক, সোহাগা; ভারতের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে হিমালয়সংলগ্ন মুসলিম-সম্প্রদায় অধ্যুষিত অঞ্চলবিশেষ।

error: Content is protected !!