বিসিএস বাংলা: উপমহাদেশের প্রথম চিকিৎসাগ্রন্থ

প্রাচীন বাংলায় রচিত উপমহাদেশের প্রথম চিকিৎসাগ্রন্থ
খ্রিষ্টীয় ত্রয়োদশ শতকের প্রথমভাগে রাজা লক্ষ্মণ সেনের সভাকবি হলায়ুধ মিশ্র, সংস্কৃত ও প্রাচীন বাংলায় গদ্য-পদ্য মিশিয়ে  চিকিৎসাশাস্ত্রের ওপর একটি  গ্রন্থ রচনা করেন। এটি প্রাচীন বাংলায় রচিত উপমহাদেশের প্রথম চিকিৎসা গ্রন্থ। গ্রন্থটিতে স্মৃতিশাস্ত্রের আদলে চিকিৎসা-ব্যবস্থা সম্পর্কে পরীক্ষামূলক বিবরণ সন্নিবেশিত হয়েছে। প্রকৃতি, বৃক্ষ ও দ্রব্যাদির গুণাবলি এবং চিকিৎসা পদ্ধতির বর্ণনা-সংবলিত গ্রন্থটি উপমহাদেশের চিকিৎসা বিজ্ঞানের প্রথম ও পথিকৃৎ গ্রন্থ হিসেবে স্বীকৃত।

সেক শুভোদয়া

‘সেক শুভোদয়া’ হলায়ুধ মিশ্রের আরেকটি কাব্যগ্রন্থ। গ্রন্থটি রাজা লক্ষ্মণ সেন এবং শেখ জালাল উদ্দিন তাবরেজির অলৌকিক কাহিনি অবলম্বনে রচিত। শেখের শুভোদয় অর্থাৎ শেখের গৌরব। শেখ তথা মধ্যপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশ হতে আগত মুসলমান মনীষীদের গৌরব বর্ণনাই ছিল গ্রন্থটির মূল উদ্দেশ্য।

বাংলাপিডিয়ামতে,  সেখশুভোদয়া সংস্কৃত গদ্য ও পদ্যে রচিত একখানি চম্পূকাব্য রচয়িতা— হলায়ুধ মিশ্র। এক হলায়ুধ মিশ্র গৌড়াধিপতি  লক্ষ্মণসেনের সভাকবি ছিলেন। তাঁর সংস্কৃত ভাষায় রচিত ব্রাহ্মণসর্বস্ব ও কিছু স্মৃতিশাস্ত্র-প্রকৃতির লেখা আছে। তিনি সেখশুভোদয়ার রচয়িতা হলে গ্রন্থের রচনাকাল বারো শতকের শেষ বা তেরো শতকের গোড়ার দিকে হওয়ার কথা। কিন্তু বিষয়, চরিত্র, ঘটনা, ভাষা ও অন্যান্য দিক বিবেচনা করে পণ্ডিতগণ মনে করেন, গ্রন্থখানি ষোলো শতকের আগে রচিত হয়নি। সুতরাং এই হলায়ুধ মিশ্র ভিন্ন ব্যক্তি হবেন। কেউ কেউ মনে করেন— কোনো মুসলমান লেখক ‘হলায়ুধ মিশ্র’ ছদ্মনামে এটি রচনা করেছেন।

সেখশুভোদয়ায় মোট ২৫টি অধ্যায় আছে। প্রায় প্রত্যেক অধ্যায়ে এক বা একাধিক গল্প আছে এবং গল্পগুলি কখনো শেখের অভিজ্ঞতায়, কখনো লক্ষ্মণসেনের অভিজ্ঞতায়, আবার কখনো মন্ত্রি-যোগীর অভিজ্ঞতায় বর্ণিত। মূলত শেখ-সেনকে কেন্দ্রবিন্দুতে রেখেই কাহিনীগুলো রচিত। বাদশাহ্ হারুনর রশিদকে কেন্দ্র করে আরব্য রজনী এবং বিক্রমাদিত্যকে কেন্দ্র করে বত্রিশ সিংহাসন গ্রন্থের অনুকরণে সেখশুভোদয়ার কাহিনি-পরিকল্পনায় লেখকের কৃতিত্ব লক্ষণীয়। অধিকাংশ গল্পে একদিকে অলৌকিক ক্ষমতা ও আধ্যাত্মিক মহিমার অধিকারী শেখ শাহ্জালালের চরিত্রগৌরব এবং অন্যদিকে মসজিদ, খানকাহ প্রতিষ্ঠা ও ধর্মান্তরীকরণ প্রক্রিয়ায় ইসলাম প্রচার করা হয়েছে। 

সেখশুভোদয়ার  অপর বৈশিষ্ট্য হলো এতে বাংলা ভাষায় একটি বচন, দুটি গীত ও পাঁচটি ছড়া-জাতীয়  শ্লোক আছে। ডাকিনীদ্বয়ের ‘ভাটিয়ালীরাগেণ গীয়তে’ পদটিতে মানবিক এবং শেখের স্ত্ততিজ্ঞাপক পদটিতে ধর্মীয় আবেদন প্রকাশিত হয়েছে। 

পৃথিবীর প্রথম কবি, অর্থশাস্ত্রবিদ, বৈয়াকরণ: বিসিএস বাংলা সাধারণ জ্ঞান

knowledge Link

সাধারণ জ্ঞান সমগ্র/২

সাধারণজ্ঞান সমগ্র/১

সাধারণ জ্ঞান সমগ্র

শুদ্ধ বানান চর্চা (শুবাচ)/১

শুদ্ধ বানান চর্চা (শুবাচ)/২

শুদ্ধ বানান চর্চা (শুবাচ)/৩

শুদ্ধ বানান চর্চা (শুবাচ)/৪

শুদ্ধ বানান চর্চা (শুবাচ) : শুদ্ধ বানান চর্চা না কি শুদ্ধ বানানচর্চা : শুবাচ বৈঠক

error: Content is protected !!