বেসরকারি কিন্তু অসরকারি নয় কেন?

ড. মোহাম্মদ আমীন

বেসরকারি, অসরকারি নয় কেন?  ‘বে’ বাংলায় বহুল ব্যবহৃত ফারসি উসর্গ।বিহীন, বিনা,ব্যতীত, অভাব, বিরোধ, নিন্দা, বৈপরীত্য প্রভৃতি ভাবপ্রকাশের জন্য এটি সংশ্লিষ্ট বিশেষ্যে বা বিশেষণের পূর্বে  সেঁটে বসে। ‘অ’ বাংলা উপসর্গ। এটি সমাসে অন্য পদের পূর্বে বসে অনৌচিত্য, অভাব (অযত্ন), বৈপরীত্য, অল্পতা, অন্যত্ব (অবাঙালি), অত্যন্ত (অমূল্য), প্রবলতা (অকষ্ট) প্রভৃতি অর্থ প্রকাশ করে। বাংলা ‍উপসর্গ হিসেবে ‘অ’ সাধারণত বাংলা শব্দের সঙ্গে যুক্ত হয়।অন্যান্য শব্দের সঙ্গেও যুক্ত হতে বাধা নেই। ফারসি উপসর্গ হিসেবে ‘বে’ বর্ণিত অর্থাদি প্রকাশের জন্য সাধারণত ফারসি শব্দের আগে যুক্ত হয়। যেমন: 

বেআইনি, বেআক্কেল, বেআদব, বে আন্দাজ, বেআন্দাজি, বেআবরু, বেইজ্জত, বেইজ্জতি, বেইনসাফি, বেইমান, বেইমানি, বেওয়াফা, বেওয়ারিশ, বেকসুর, বেকায়দা, বেকার, বেগানা, বেগুনাহ, বেচয়েন,  বেজুত,  বেজোড়,  বেঢক, বেঢপ, বেতার, বেতাল, বেদখল, বেদখলি, বেদলীয়,  বেদস্তুর, বেদাগ, বেদরকারি, বেদল, বেদস্তুর, বেদাত, বেদানা, বেধড়ক, বেনজির, বেনাম, বেনামা, বেনামি,  বেনিয়ম, বেপরোয়া, বেপর্দা, বেপাড়া, বেফাঁস, বেফায়দা, বেবন্দেজ, বেবন্দোবস্ত, বেমতলব, বমালুম, বেয়াদব, বেয়াদবি,   বেরসিক, বেসরকারি, বেসামরিক,  বেহাত, বেহায়া, বেহায়াপনা,  বেহাল, বেহিসাব, বেহিসাবি, বেহুঁশ, বেহুদা, বেহেড প্রভৃতি। 

সীমিত ক্ষেত্রে ফারসি ‘বে’ উপসর্গ কিছু কিছু বাংলা শব্দের সঙ্গে যুক্ত হয়। যেমন: বেখাপ্পা, বেঘোর, বেচাল, বেজন্মা, বেজায়গা, বেজোট, বেঠিক, বেমানান, বেরং, বেসুর, বেসুরো। তবে সংস্কৃত শব্দের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার ঘটনা বিরল।এগুলো আবার অ-নিয়েও দেখা যায়। যেমন: অঘোর, অচাল, অজন্মা, অজায়গা, অজোট প্রভৃতি।

‘সরকরি’ শব্দটি যেহেতু ফারসি, তাই তার সঙ্গে ফারসি ‘বে’ উপসর্গ যুক্ত হয়ে বেসরকারি শব্দ গঠন করেছে। যার অর্থ  বিশেষণে সরকারের নয় এমন (বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়), সরকার-নিয়ন্ত্রিত নয় এমন উদ্যোগ (বেসরকারি ব্যবস্থা), ব্যক্তিমালিকানাধীন ( বেসরকারি বিমান পরিবহণ) প্রভৃতি। অনুরূপ: বেসামরিক। যদি, সরকারি শব্দটি ফারসি না হয়ে বাংলা হতো তাহলে হতো: অসরকারি, অসামরিক। অ উপসর্গ  সরকারের সঙ্গে যুক্ত হয় না কেন?  জাত ভাই যেখানে সহজলভ্য সেখানে অযথা বেজাত ভাইয়ের কী প্রয়োজন।

অ:  অ উপসর্গটি সমাসে অন্য পদের পূর্বে অনৌচিত্য, অভাব (অযত্ন), বৈপরীত্য, অল্পতা, অন্যত্ব (অবাঙালি), অত্যন্ত (অমূল্য), প্রবলতা (অকষ্ট) প্রভৃতি অর্থ প্রকাশ করে। যেমন: অঘা, আঘটা, অধরা, অবিচার প্রভৃতি।

সূত্র: নিমোনিক বাংলা বানান অভিধান: ব্যাকরণ মুখস্থ না করে বানান আত্মস্থ করার কৌশল: (প্রকাশনীয়), পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স লি.


All Link

বিসিএস প্রিলি থেকে ভাইভা কৃতকার্য কৌশল

ড. মোহাম্মদ আমীনের লেখা বইয়ের তালিকা

বাংলা সাহিত্যবিষয়ক লিংক

বাংলাদেশ ও বাংলাদেশবিষয়ক সকল গুরুত্বপূর্ণ সাধারণজ্ঞান লিংক

বাংলা বানান কোথায় কী লিখবেন এবং কেন লিখবেন/১

বাংলা বানান কোথায় কী লিখবেন এবং কেন লিখবেন/২

বাংলা বানান কোথায় কী লিখবেন এবং কেন লিখবেন /৩

কীভাবে হলো দেশের নাম

ইউরোপ মহাদেশ : ইতিহাস ও নামকরণ লিংক

শুদ্ধ বানান চর্চা লিংক/১

দৈনন্দিন বিজ্ঞান লিংক

শুদ্ধ বানান চর্চা লিংক/২

শুদ্ধ বানান চর্চা লিংক/৩

শুদ্ধ বানান চর্চা লিংক/৪

কীভাবে হলো দেশের নাম

সাধারণ জ্ঞান সমগ্র

সাধারণ জ্ঞান সমগ্র/১

সাধারণ জ্ঞান সমগ্র/২

বাংলাদেশের তারিখ

ব্যাবহারিক বাংলা বানান সমগ্র : পাঞ্জেরী পবিলেকশন্স লি.

শুদ্ধ বানান চর্চা প্রমিত বাংলা বানান বিধি : বানান শেখার বই

কি না  বনাম কিনা এবং না কি বনাম নাকি

মত বনাম মতো : কোথায় কোনটি এবং কেন লিখবেন

ভূ ভূমি ভূগোল ভূতল ভূলোক কিন্তু ত্রিভুবন : ত্রিভুবনের প্রিয় মোহাম্মদ

মত বনাম মতো : কোথায় কোনটি এবং কেন লিখবেন

প্রশাসনিক প্রাশাসনিক  ও সমসাময়িক ও সামসময়িক

বিবিধ এবং হযবরল : জ্ঞান কোষ

সেবা কিন্তু পরিষেবা কেন

ভাষা নদীর মতো নয় প্রকৃতির মতো

এককথায় প্রকাশ

শব্দের বানানে অভিধানের ভূমিকা

আফসোস নিয়ে আফসোস

লক্ষ বনাম লক্ষ্য : বাংলা বানান কোথায় কী লিখবেন

ব্যাঘ্র শব্দের অর্থ এবং পাণিনির মৃত্যু

যুক্তবর্ণ সরলীকরণ আন্দোলন : হাস্যকর অবতারণা

প্রায়শ ভুল হয় এমন কিছু শব্দের বানান/২

গীতাঞ্জলি

রবীন্দ্রনাথের ডাকঘর

রবীন্দ্রনাথের রাজা

রবীন্দ্রনাথের চতুরঙ্গ

রবীন্দ্রনাথের মুক্তধারা

error: Content is protected !!