ব্যাবহারিক প্রমিত বাংলা বানান সমগ্র : অন

ব্যাবহারিক প্রমিত বাংলা বানান সমগ্র

ড. মোহাম্মদ আমীন

অনিন্দ নয়, লিখুন অনিন্দ্য (নিন্দার অযোগ্য):  তবে অনিন্দনীয় এবং নিন্দনীয়। কারণ, অনিন্দ্য থেকে অনিন্দনীয়, নিন্দ্য থেকে নিন্দনীয়। কোনো শব্দের সঙ্গে ‘অনীয়-প্রত্যয়’ যুক্ত হলে য-ফলা চলে যায়। এ কারণে, লক্ষ্য কিন্তু লক্ষণীয়। যেমন : মান্য+ অনীয় = মাননীয়,  বরণ্য+ অনীয় = বরণীয়; লক্ষ্য+অনীয়= লক্ষণীয়। 

অন্ত অন্ত্য অন্ত্যবর্ণ:  বাক্যে বিশেষ্য হিসেবে ব্যবহৃত সংস্কৃত অন্ত (অম্‌+ত) শব্দের অর্থ সীমা ( মহাশূন্যের অন্ত নেই), অবধি (মৃত্যু অবধি), অবসান (আজ সভার অন্ত দিন), মৃত্যু, নাশ, স্বরূপ (তার অন্ত পাওয়া চাট্টিখানি কথা নয়) প্রভৃতি। অন্যদিকে, বাক্যে বিশেষণ হিসেবে ব্যবহৃত সংস্কৃত অন্ত্য (অন্ত+য) শব্দের অর্থ চরম, অন্তিম, অন্তস্থ। অন্ত্যবর্ণ অর্থ— শব্দের শেষ অক্ষর। যেমন : ‘কলম’ শব্দের অন্ত্যবর্ণ হচ্ছে ‘ম’।

ফাউ : 

অনাদ্র নয়, লিখুন অনার্দ্র (ভেজা নয় এমন, শুষ্ক)।

অনুদিত (উদিত হয়নি এমন, অপ্রকাশিত), অনূদিত (অনুবাদের ক্ষেত্রে)। অনূদিত অর্থ অনুবাদ করা হয়েছে এমন।

অনুর্ধ্ব নয়,  অনূর্ধ্ব। অনুর্ধ্ব শব্দের বানানে ন-য়ে ঊ-কার। কারণ, ঊর্ধ্ব বানানে ঊ-কার। শব্দটির ব্যুৎপত্তি হলো (স. ন+ঊর্ধ্ব)।

অনেকপ্রকার লিখুন, অনেক প্রকার নয়। তেমনি লিখুন, অনেকক্ষণ।

অনুদ্বায়ী নয়, অনুদ্‌বায়ী (বাতাসে উবে যায় এমন)। অনুদ্বায়ী লিখলে উচ্চারণ হয়, অনুদ্‌দায়ি; কিন্তু শব্দটির উচ্চারণ অনুদ্‌বায়ি। অনুদ্‌বেল, অনুদ্‌বেগ।

অনমতিনুসারে নয়, অনুমত্যনুসারে (আদেশক্রমে)। কারণ, (অনুমতি+অনুসারে) = অনুমত্যনুসারে (ই+অ= য-ফলা)।

সূত্র: ব্যাবহারিক প্রমিত বাংলা বানান সমগ্র, ড. মোহাম্মদ আমীন, পর্যবেক্ষণ ও পরিশীলনে হায়াৎ মামুদ, পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স লি.।  বাংলা ভাষার মজা, ড. মোহাম্মদ আমীন, পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স লি.।

ক্লিক করুন : সাধারণ জ্ঞান সমগ্র

error: Content is protected !!